ArabicBengaliEnglishHindi

রাজউকের অনুমোদন ছাড়াই ভবন নির্মাণ


প্রকাশের সময় : নভেম্বর ২০, ২০২২, ৪:০৮ অপরাহ্ণ / ১৬
রাজউকের অনুমোদন ছাড়াই ভবন নির্মাণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:-  রাজধানীর হাতিরঝিলের মিরবাগে নকশা অনুমোদন ছাড়াই ভবন নির্মাণকাজ চলছে। জমির মালিকানা থেকে ওয়ারিশদের বঞ্চিত করতে সুকৌশলে সন্ত্রাসীদের পাহারায় নির্মাণকাজ চালানো হচ্ছে। কিন্তু এ ব্যাপারে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (রাজউক) নির্বিকার। কাজ বন্ধে দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তারা মুখে মুখে প্রতিশ্রুতি দিলেও নির্মাণকাজ চলছে।

জানা যায়, অবৈধ ভবন নির্মাণের পক্ষে আওয়ামী লীগের এক প্রভাবশালী ব্যক্তি রাজউকের কর্মকর্তাদের ফোন করেছেন। এ কারণে পদক্ষেপ নিতে তারা ভয় পাচ্ছেন।

সংক্ষুব্ধরা জানান, রাজউকের দায়িত্ব আইন অনুযায়ী কার্যক্রম পরিচালনা করা। কিন্তু কারও টেলিফোনে তারা চুপসে যাবেন, এটা মানা যায় না। রাজউকের দায়িত্ব আইন ও বিধির আলোকে কার্যক্রম পরিচালনা করা। ১৭ নভেম্বর রাজউক চেয়ারম্যান বরাবর লিখিত অভিযোগ করেন বঞ্চিত ওয়ারিশরা।

তারা হলেন-শরীফ মিজানুর রহমান, সুরাইয়া বেগম, সেলিনা আক্তার, শিল্পী বেগম ও শাহনেওয়াজ খান। তারা জানান, তাদের পৈতৃক সম্পত্তি যথাযথ প্রক্রিয়ায় ভাগবাঁটোয়ারা না করে বড় ভাই শাহ আলম খানের (মৃত) ছেলে মোস্তাক খান (ডিউ) জমি (হোল্ডিং নম্বর ১৩/এ) দখল করেছেন এবং সেখানে অবৈধভাবে ভবন নির্মাণকাজ শুরু করেছেন।

লিখিত অভিযোগে আরও বলা হয়, রাজউকের অনুমতি ছাড়া এবং চৌহদ্দি না মেনে প্রাপ্ত ১ কাঠা জমির সঙ্গে ওয়ারিশনদের জমি দখল করে ডিউ ভবন নির্মাণকাজ অব্যাহত রেখেছেন। ২২ মে ভবন নির্মাণকাজে ওয়ারিশরা বাধা দিলে ৬ থেকে ৭ যুবক তাদের হুমকি-ধমকি দেয়। যুবকগুলো সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বলেও তারা জানান। এছাড়া ডিউ ওয়ারিশদের নানাভাবে হয়রানিও করছেন। ১০৭ ধারায় তাদের নামে মিথ্যা মামলা করেও হয়রানি করা হচ্ছে। অবৈধ নির্মাণকাজ বন্ধে আদালত ১৪৪ ধারা জারি করলেও নির্মাণকাজ অব্যাহত রয়েছে। বেশির ভাগ সময় রাতে ভবনের নির্মাণকাজ করা হয়। এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরিও (জিডি) করা হয়েছে।

অভিযোগ প্রসঙ্গে মোস্তাক খান ডিউর মতামত জানতে তার মোবাইল ফোনে কল দেওয়া হলে তিনি কোনো মতামত জানাতে অপারগতা প্রকাশ করেন। এ বিষয়ে রাজউকের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জোটন দেবনাথ বলেন, নকশা বহির্ভূতভাবে কাউকে ভবন নির্মাণ করতে দেওয়া হবে না। ওই ভবনটির নির্মাণকাজও বন্ধ করে দেওয়া হবে। এ ব্যাপারে রাজউকের সদস্য (উন্নয়ন নিয়ন্ত্রণ) তন্ময় দাস বলেন, নকশাবহির্ভূতভাবে কাউকে নির্মাণকাজ করতে দেওয়া হবে না। দু-একদিনের মধ্যে অথরাইজড অফিসারকে ঘটনাস্থলে পাঠানো হবে।

%d bloggers like this: