ArabicBengaliEnglishHindi

চাঁদা না দেয়ায় ঠিকাদারসহ তার লোকজনকে মারপিট ও গাড়ী ভাংচুরের ঘটনায় গুরুতর আহত ১


প্রকাশের সময় : নভেম্বর ১৩, ২০২২, ৫:৫১ অপরাহ্ণ / ১০
চাঁদা না দেয়ায় ঠিকাদারসহ তার লোকজনকে মারপিট ও গাড়ী ভাংচুরের ঘটনায় গুরুতর আহত ১
রিপন বিশ্বাস (নড়াইল জেলা প্রতিনিধি) :- চাঁদা না দেওয়ায় নড়াইল জেলার নড়াগাতীতে ঠিকাদারসহ তার লোকদের মারপিট ও গাড়ী ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে , এ ঘটনায় শহিদুল নামের ১ জন গুরুতর আহত  হয়েছে।
৭ ই নভেম্বর(সোমবার) দুপুরে দেবদুন বাবুল জান্নাত দাখিল মাদ্রাসায় এ ঘটনাটি ঘটেছে  বলে জানা গেছে।
এ ঘটনায় ৮ই নভেম্বর (মঙ্গলবারে) ওই মাদ্রাসার সভাপতি নাজমুল হাসান (ঝন্টু) ,তানভীর কাজী,রিয়াজুল মুন্সি,আমিন মুন্সি, রহমত মুন্সি, জাহাঙ্গীর কাজীসহ মোট ১৬ জনের বিরুদ্ধে ঠিকাদার কামাল হোসেন বাদী হয়ে নড়াগাতী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
এ বিষয় ঠিকাদার কামাল হোসেন সাংবাদিকদের জানান,ঐ মাদ্রাসার সভাপতি নাজমুল হাসান ঝন্টু দীর্ঘদিন ধরে আমার কাছে ২ লক্ষ টাকা চাঁদা চেয়ে আসছিল।আমি এ বিষয় চেয়ারম্যান কাজী আইয়ুব হোসেন সহ
ঐ এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিদের জানিয়েছি।চাঁদা না দেয়ায় ওই দিন সভাপতি তার লোকজন নিয়ে আমার কাজে অহেতুক ভুল ধরে আমার কাজ বন্ধ করে দেয় পরে আমার ফুফাতো ভাই চৌধুরী শহিদুল ইসলাম প্রতিবাদ করতে গেলে অভিযুক্ত ব্যক্তিরা তাকে এলোপাতাড়ি মারপিট করে ও তার মাথায় কুপিয়ে গুরুতর আহত করে আটকিয়ে রাখে। পরে আমি নড়াগাতী থানায় সংবাদ দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে মোটরসাইকেলসহ ও আমাদের উদ্ধার করে। আহত শহিদুল ইসলাম কে গোপালগঞ্জ সদর হসপিটালের জরুরি বিভাগের নিয়ে ভর্তি করানো হয়েছে।
সাংবাদিকদের ওই মাদ্রাসার সভাপতি নাজমুল হাসান ঝন্টুর কাছে জানতে চাইলে তিনি চাঁদা দাবীর বিষয় অস্বীকার করে বলেন, নিম্ন মানের শুড়কি দিয়ে কাজ করায় আমরা ঠিকাদার কে কাজ করতে,এলাকার  লোকজন, মাদ্রাসার ম্যানেজিং কমিটি ও স্থাণীয়রা বাধা দেয়। এই মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতার ছেলে হিসেবে আমি চাইব সিডিউল অনুযায়ী কাজটি হোক ।
এ বিষয়ে নড়াগাতী  থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি সুকান্ত সাহা বলেন,  এই ঘটনার  খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ফোর্স পাঠিয়েছিলাম এবং তাদের উদ্ধার করা হয়েছে।পরে ওই ঠিকাদার একটি লিখিত অভিযোগ করেছে। তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
%d bloggers like this: