করতোয়ায় নৌকাডুবিতে বাবা মাকে হারিয়ে ৩ বছরের শিশু দীপু কাঁদে দাদার কোলে


প্রকাশের সময় : অক্টোবর ১, ২০২২, ৫:৫৪ অপরাহ্ণ / ১৭৭
করতোয়ায় নৌকাডুবিতে বাবা মাকে হারিয়ে ৩ বছরের শিশু দীপু কাঁদে দাদার কোলে

মাজহারুল ইসলাম (পঞ্চগড়) প্রতিনিধিঃ– মহালয়ার পূণ্যাথীদের বহনকারী নৌকা ডুবিতে ৬৯ জনের প্রাণহানীর ঘটনায় অনাড়ম্ব পূজা উদযাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।নৌকা ডুবিতে নিহতদের প্রতি সম্মান জানিয়ে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ এবং পঞ্চগড় জেলা পূজাকমিটি সভা করে গতকাল ৩০ সেপ্টেম্বর শুক্রবার এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।গন মাধ্যমে পাঠানো আলাদা আলাদা সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। অনাড়ম্বরের পাশাপাশি পূজা চলাকালে প্রত্যেক পূজামন্ডপে প্রয়াত ব্যাক্তিদের আত্মার শান্তি ও মঙ্গল কামনায় প্রার্থনা আয়োজন এবং প্রত্যেকে পূজামন্ডপ থেকে সংগ্রহ করা অর্থ প্রয়াত ব্যাক্তিদের সমবেদনা প্রকাশ েছাড়া সভায় প্রয়াত ব্যাক্তিদের স্মরণে দুর্ঘটনা স্থলে আউলিয়ার ঘাটে স্মৃতি সৌধ নির্মানের দাবী জানানো হয়। পঞ্চগড় জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সাধারন সম্পাদক শ্যামল রায় সাধারন সম্পাদক বিপেন চন্দ্র রায় আলাদা আলাদা চিঠিতে সভার গৃহীত সিদ্ধান্তগুলো সব পূজা মন্ডপ কমিটিকে এরেই মধ্যে জানানো হয়েছে।

বাবা মা মন্দিরে গেছেন খেলনা নিয়ে আসবেঃ করতোয়া নদীতে আউলিয়ার ঘাটে নৌকা ডুবিতে এরই মধ্যে -৬৯ জনের লাশ উদ্ধার হলেও এখনও ৩ জন নিখোঁজ রয়েছে।ওই দুর্ঘটনায় ৭ দিন পেরিয়ে গেলেও এখনো রয়েছে ৩জন।এর মধ্যে দেবীগঞ্জ উপজেলার শালডাঙ্গা ইউনিয়নের ভূপেন্দ্রনাথ ওরফে পানিয়া (৩৫) ঘটনার দিন স্ত্রী রুপালী রাণী ও ৩ বছরের শিশু দীপু সহ ওই নৌকায় উঠেছিল মহালয়ায় যাওয়ার পথে মাঝ নদীতে ‘ নৌকা ডুবিতে তিনজনেই তিন দিকে নদীর প্রবল স্রোতে হারিয়ে গেলেও অলৌকিকভাবে শিশু দীপুকে জিবিত উদ্ধার করে তার দাদা মদন চন্দ্রে হেফাজতে ফিরে আসলে হতভাগ্য দীপুর মা রুপালী রাণী পরের দিন ৪০ কিলোমিটার ভাটিতে দিনাজপুর খানসামায় দীপু মা রুপালীর লাশ উদ্ধার করে।কিন্তু দীপুর বাবা ভূপেন্দ্রনাথের লাশ আজও উদ্ধার হয়নি। দীপুর দাদা মদন চন্দ্র দীপুকে ঘাড়ে নিয়ে শালডাঙ্গা উইনিয়ন পরিষদের মাঠে দীপুর বাবার লাশ উদ্ধারের আশায় প্রতিদিন ঘুরছে। ছোট্ট অবুজ শিশু আদো আদো কণ্ঠে তার পিতা মাতা ও পুজার খেলনা কখন নিয়ে আসবে এই ভাবনার কথা কাঁদে কাঁদে বলেন সাংবাদিকদের দীপুর দাদা মদন চন্দ্র।