ArabicBengaliEnglishHindi

কবির বিন আনোয়ার।নতুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব নিয়োগ পেয়েছেন


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ১১, ২০২২, ৫:২৬ অপরাহ্ণ / ২২
কবির বিন আনোয়ার।নতুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব নিয়োগ পেয়েছেন

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক :- নতুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব নিয়োগ পেয়েছেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব কবির বিন আনোয়ার।

রোববার (১১ ডিসেম্বর) জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এক আদেশে ২৩তম মন্ত্রিপরিষদ সচিব হিসেবে কবির বিন আনোয়ারকে এ নিয়োগ দেয়। তিনি মোহাম্মদ খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামের স্থলাভিষিক্ত হচ্ছেন।

বর্তমান মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলামের চুক্তিভিত্তিক নিয়োগের মেয়াদ আগামী ১৫ ডিসেম্বর শেষ হবে।

কবির বিন আনোয়ার ১৯৬৪ সালের ৪ জানুয়ারি সিরাজগঞ্জে জন্মগ্রহণ করেন। কবির বিন আনোয়ার বিসিএস সপ্তম ব্যাচের প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তা।

তিনি ১৯৮৮ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি সহকারী কমিশনার হিসেবে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসে যোগ দেন। কবির বিন আনোয়ার মাঠপ্রশাসনে সহকারী কমিশনার, সহকারী কমিশনার (ভূমি), উপজেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়া তিনি নেদারল্যান্ডসের হেগে বাংলাদেশ দূতাবাসে সহকারী সচিব হিসেবে প্রথম সচিব, অর্থ মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের উপসচিব এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে মহাপরিচালক (অতিরিক্ত সচিব) ছিলেন। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক (প্রশাসন) থাকার সময় ২০১৮ সালে তিনি পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব হন। ২০২০ সালের ২৯ জুন সিনিয়র সচিব হন।

কবির বিন আনোয়ার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগ থেকে এমএ ডিগ্রি নেন। পরে এলএলবি ডিগ্রিও অর্জন করেন তিনি।

তিনি প্রশাসন ক্যাডারের কর্মকর্তাদের সংগঠন বাংলাদেশ অ্যাডমিনিস্ট্রেটিভ সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশসের সভাপতি। তার প্রকাশিত বইয়ের মধ্যে অন্যতম বিশ্ব ধারা মাধ্যমে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম (সংকলন-১), বিশ্ব ধারা মাধ্যমে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম (সংকলন-২), বিস্মৃত মুসলিম মানস, রুপসী বাংলা (১ম খণ্ড), প্রযুক্তি বদলে দিল যারা, অপরূপ বাংলাদেশ (১ম খণ্ড)।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব মন্ত্রিসভা ও বিভিন্ন মন্ত্রিসভা কমিটির সচিবের দায়িত্ব পালন করেন। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের মূল দায়িত্ব হচ্ছে মন্ত্রিসভা ও এর কমিটিগুলোকে সিদ্ধান্ত গ্রহণে সহায়তা এবং গৃহীত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন পরিবীক্ষণ ও সমন্বয়।

এছাড়া মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ মাঠ প্রশাসন তথা বিভাগীয় কমিশনার, জেলা প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের কাজের তদারক করে থাকেন। সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয় বা বিভাগের কাজের সমন্বয় সাধনও মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অন্যতম দায়িত্ব।

সরকারের সামগ্রিক কার্যক্রম পর্যালোচনা ও সমন্বয়ের অন্যতম ফোরাম সচিব সভা। মন্ত্রিপরিষদ সচিব এ সভার সভাপতি। তাছাড়া মন্ত্রিপরিষদ সচিব সিভিল প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন পদগুলোতে পদোন্নতির সুপারিশকারী সুপিরিয়র সিলেকশন বোর্ডের (এসএসবি) সভাপতি।

%d bloggers like this: